ফ্রিল্যান্সিং

আপনি কি নির্ভরযোগ্য ফ্রিল্যান্সিং সাইট খুঁজছেন?

are-you-looking-for-reliable-freelancing-sites

অনলাইন দুনিয়ায় অসংখ্য ফ্রিল্যান্সিং সাইট রয়েছে তবে কাজ করার জন্য সবগুলোই কিন্তু উপযুক্ত নয়। কিছু কিছু সাইট আছে শুধু নির্দিষ্ট টাইপের কাজ পাওয়া যায়। কিছু কিছু সাইট শুধু দক্ষ লোকের জন্য। আপনি যদি একজন ফ্রিল্যান্সার হিসেবে আপনার কর্মজীবনের শুরু করতে চান তবে আপনার প্রয়োজন বিশ্বের সেরা এবং বিশ্বস্ত ফ্রিল্যান্সিং সাইট যেখানে আপনি কাজ করে অর্থ উপার্জন করতে পারবেন এবং নিজের ভালো একটি প্রোফাইল সাজাতে পারবেন।

আপওয়ার্ক: বর্তমান সময়ের অন্যতম জনপ্রিয় মার্কেটপ্লেস হচ্ছে আপওয়ার্ক। বিশ্বের সবচেয়ে বড় অনলাইন মার্কেটপ্লেস ‌ইল্যান্স-ওডেস্ক নতুন একটি নাম নিয়ে যাত্রা শুরু করেছে। প্রতিষ্ঠানটির নতুন নাম দেওয়া হয়েছে আপওয়ার্ক। এখানে বায়াররা বিভিন্ন কাজ নিয়ে জব পোস্ট করে। কাজ করতে আগ্রহী ফ্রিল্যান্সাররা সেই কাজ পাওয়ার জন্য বিড করে। এসব বিড দেখে বায়াররা তাদের কাজের জন্য যোগ্য লোককে বাছাই করে।এখানে বায়াররা দুইভাবে কাজ দেয়। একটা হচ্ছে ফিক্সড রেট, আরেকটা আওয়ারলি রেট।
ফ্রিল্যান্সার: এটি ফ্রিল্যান্সারদের জন্য খুব বড় একটি কাজের ক্ষেত্র। এটি সেরা সাইটগুলোর মধ্য একটি অন্যতম। এখানে ওয়েব ডিজাইনার, কপিরাইটার বা ফ্রিল্যান্স প্রোগ্রামারার ,এস ই ও সব ধরনের কাজের জন্য বিড করে কাজ করতে পারবেন।
টোপাল: আপনি যদি ফ্রিল্যান্সার হিসেবে একজন ভালো ডেভেলপার হয়ে থাকেন তাহলে Toptal আপনার জন্য একটি ভালো কাজের সাইট। অন্যান্য সাইটগুলোতে সাধারনত বিভিন্ন ধরনের কাজ থাকে । কিন্তু এখানে শুধু ডেভেলপারদের উপর ফোকাস করা হয়।
৯৯ডিজাইনস: বর্তমানে ডিজাইনের জন্য সবচেয়ে আলোচিত ফ্রিল্যান্সিং সাইট হচ্ছে ৯৯ডিজাইনস। এখানে ডিজাইনের কাজগুলো সবচেয়ে বেশি পাওয়া যায় । আপনি এখানে লোগো, ব্যবসায়িক কার্ড, ওয়েবসাইট, অ্যাপ্লিকেশন, ইনফোগ্রাফিক, টি-শার্ট, কার্ড, আমন্ত্রণ, পণ্য প্যাকেজ, বই, এবং পত্রিকা কভার ইত্যাদি টাইপের অসংখ্য কাজ পাবেন ।
ইনভাটো ষ্টুডিও (আগের নাম FreelanceSwitch): এই সাইটটি খুব নামকরা একটি জব সাইট, যেখানে আপনি আপনার তৈরি করা ডিজাইনগুলো বিক্রি করতে পারবেন। ইনভাটোর অনেক ওয়েবসাইট রয়েছে। গ্রাফিকরিভার (graphicriver.net) হচ্ছে গ্রাফিক ডিজাইনারদের জন্য, থিমফরেস্ট (themeforest.net) হচ্ছে ওয়েবডিজাইনারদের জন্য।
ফাইভার: Fiverr হচ্ছে ছোট ছোট কাজের জন্য বিখ্যাত একটি সাইট। ৫ ডলার থেকে এখানে কাজের রেট করা আছে। এখানে আপনি সব ধরনের কাজ পাবেন।
মাইক্রোওয়ার্কার: এই মার্কেট প্লেসে সব ছোট ছোট কাজগুলো পাওয়া যায়। যারা একবারে নতুন তাদের জন্য এ মার্কেটপ্লেসে কাজ করা অনেক সহজ।
অ্যামাজন: অ্যামাজন হচ্ছে অনলাইনে পণ্য বিক্রির সবচেয়ে বড় স্টোর। অ্যাফিলিয়েশনের ক্ষেত্রেও সবচেয়ে বড় সেক্টর হচ্ছে অ্যামাজন। এখানে পণ্যের মধ্যে শিপিং পণ্য বেশি। দৈনন্দিন কাজে ব্যবহৃত ছোট থেকে বড় সব পণ্য অ্যামাজনে পাওয়া যায়। সেসব পণ্যের বিক্রির জন্য অ্যাফিলিয়েশন করা যায়।
স্ট্যাক ওভারফ্লো ক্যারিয়ারস: এই সাইটটি শুধু সমস্যা সমাধানের জন্য নয় এখানে অনেক কাজ পাওয়া যায়। তবে এখানে কাজ করতে হলে একাউনট এর সাথে Stack Career এর থেকে নিমন্ত্রন পেতে হবে।
ড্রিবল: এখানে সাইন আপ করুন আর প্রোফাইল পেজ এর Hire me বাটন এ জব বোর্ড এ আপনার কাজ খুঁজুন।
বিহান্স: এই সাইটটি যারা সৃজনশীল এবং ইউনিক আইডিয়া নিয়ে কাজ করেন যেমনঃ গ্রাফিক্স ডিজাইনার, মাল্টিমিডিয়া ইত্যাদি তাদের জন্য খুব ভালো একটি জব সাইট।
ওয়ার্ডপ্রেস জবস: এটি ওয়ার্ডপ্রেসের একটি অফিসিয়াল জব বোর্ড। এখানে আপনি প্লাগিন ডেভেলপমেন্ট, থিম কাস্টমাইজেশন, বা ওয়ার্ডপ্রেস সাইট অপ্টিমাইজেশান এই ধরনের কাজ পাবেন। আপনি যদি ওয়ার্ডপ্রেসের ভালো কাজ পারেন তাহলে সহজেই এখানে কাজ পাবেন।
লিঙ্কড ইন: এই সাইটটি খুবই প্রফেশনাল মানের সাইট। আপনি এখানে একবার সাইন আপ করুন, তারপর থেকে আপনি তাদের জব বোর্ড থেকে কাজ খুঁজতে পারবেন।
স্ম্যাশিং জবস: প্রোগ্রামার, ওয়েব ডিজাইনার আরও অন্যান্য অনেক জবের সুবিধাসহ এটি একটি সুন্দর একটি জব পোর্টাল।
গুরু: গুরু ডট কম একটি ফ্রিল্যান্সিং সাইট যেখানে আপনি বিভিন্ন ধরনের কাজ পাবেন । এই সাইটটি সবচেয়ে জনপ্রিয় ভারতে। এখানে সার্চ ইঞ্জিন অপ্টিমাইজেশন নিয়ে অনেক কাজ পাওয়া যায় ।
ডব্লিউপি হায়ার্ড: ওয়ার্ডপ্রেস ডেভেলপারদের জন্য এই সাইটটি একটি খুব বড় ধরনের ভালো সুযোগ। WPHired এ ওয়ার্ডপ্রেস সম্পর্কিত প্রোজেক্টে এ একজন ফুল টাইম ফ্রিলান্সার বা পার্ট টাইম বা ইন্টার্ননি হেসেবে কাজ করতে পারবেন।
উই ওয়ার্ক রিমোটলি: নামের মতোই এটি এমন একটি সাইট যেখানে আপনার পছন্দমতো বা যে কাজ আপনি ঘরে বসে করতে পারবেন সেরকম কাজ এখানে আপনি খুঁজে পাবেন।
হায়ারেবল: Hirable এটি একটি সোসিয়াল সাইট, যেখানে ফ্রিল্যান্সার এবং এমপ্লয়াররা দেখা করতে পারে।
ক্রু: Crew এটি ওয়েব ডিজাইনার এবং অ্যাপ ডেভেলপারদের উপর ফোকাস করে।
গান: Gun.io খুব সফলভাবে আমজন ডট কম, লোনলি প্লানেট এর মতো কোম্পানিদের ফ্রিল্যান্সার দেলিভারি দেয়। আপনি এখানে কাজ করতে চাইলে আগে গিথহাব এ আকাউনট থাকতে হবে।
লোকালসলো: LocalSolo সাইটটি হচ্ছে বিজনেস এবং ফ্রিল্যান্সারদের যোগাযোগের জায়গা। এখানে আপনি বিনামূল্যে একজন ফ্রিল্যান্সার বা এমপ্লয়ার হিসাবে সাইন আপ করতে পারেন ।
অনসাইট: ডিজাইনার, কপিরাইতার বা ফ্রিল্যান্স প্রোগ্রামাররা এখান থেকে ফ্রিল্যান্সিং এর জন্য অনেক সুযোগ খুঁজে পাবে।
যুনোজুনো (https://www.yunojuno.com/): এটি আরও একটি অসাধারণ ফ্রিল্যান্সিং গিগের জব সাইট। এই সাইট ফ্রিল্যান্সারদের সাথে এমপ্লয়ারদের যোগাযোগ করিয়ে দেয়।
ক্রাউডসাইট: আপনি যদি ভালো ডিজাইনার এবং ডেভেলপার হয়ে থাকেন এই সাইটে চেষ্টা করতে পারেন ।
জুমল্যান্সারস: এই সাইটটি শুধু যারা জুমলা নিয়ে কাজ করেন তাদের জন্য। জুমলা প্রফেশনালদের জন্য এটি একটি দারুণ সাইট।
পিপল পার আওয়ার: পিপল পার আওয়ার মূলত ডুয়াল মারকেটপ্লেস। এখানে আপনি ফিভারের মত আপনার সার্ভিস সেল করতে পারবেন,আবার ফ্রিল্যান্সার এর মত জবে বিড করতে পারবেন। তবে বিডিং সিস্টেম থেকে সার্ভিস সেল করাটাই এখানে বেশি জনপ্রিয়। এখানে আপনি সব ধরণের কাজ বিক্রি ও কিনতে পারবেন।
ডিজাইনক্রাউড: এটি একটি গ্রাফিক্স ডিজাইন মার্কেট প্লেস যেখানে ক্রিয়েটিভ ধরনের লোকেরা সহজেই কাজ পায়।
সিমপ্লি হায়ার্ড(https://www.simplyhired.com/): এটিও একটি অসাধারণ সাইট। এই অনলাইন জব পোর্টাল থেকে আপনি সব ধরনের কাজ খুঁজে পাবেন।
দ্যা শেলফ: TheShelf এমন একটি সাইট যেখানে ব্লগার এবং ফ্রিল্যান্স লেখক ফ্যাশন, লাইফস্টাইল, খাদ্য, এবং ভ্রমণ সংযুক্ত হয়ে ব্রান্ডের সাথে সহযোগিতা করে একসাথে কাজ করে।
বার্ক: Bark এই মারকেটপ্লেসটি প্রায় সব ধরনের কাজের জন্য প্রযোজ্য, পেইন্টার, ফটোগ্রাফার থেকে পার্টি ক্যাটারার পর্যন্ত।
ওয়ে আপ: এটি ছাত্রদের জন্য একটি ভালো সাইট যারা পার্টটাইম জব খুঁজছেন। এখান থেকে একদিকে তারা নিজেদের কাজের অভিজ্ঞতা বাড়াতে পারবে অন্যদিকে কিছু টাকাও আয় করতে পারবে।
এয়ারপেয়ার: AirPair এটি একটি কমিউনিটি সাইট যেখানে ডেভেলপাররা একে অপরের সাথে মিলিত হয়ে তাদের অভিজ্ঞতা শেয়ার করেন। এটি ফ্রিল্যান্সিং সাইট নয় তবে এখানে একটা ভালো নেটওয়ার্ক পাবেন, যেখান থেকে হয়তো আপনি জব পাবেন যা আপনার ক্যারিয়ার তৈরি করতে সাহায্য করবে।
ট্রাকশন: আপনার যদি একটি জনপ্রিয় ব্লগ থাকে বা সামাজিক influencer হন, তাহলে এখানে সাইন আপ করতে পারবেন Traction এর একজন Marketing Partner হিসেবে এবং আয় শুরু করতে পারবেন।

(সূত্রঃ ইন্টারনেট)

0 Comments

Ahmed Imran

There is nothing to say about myself

Reply your comment

Your email address will not be published. Required fields are marked*

3 × 2 =